এইচএসসি মডেল টেস্ট ৬ বাংলা প্রথম পত্র

এইচএসসি মডেল টেস্ট : বাংলা প্রথম পত্র

সৃজনশীল প্রশ্ন

মান : ৭০

[দ্রষ্টব্য : উদ্দীপকগুলো মনোযোগ দিয়ে পড়ে সংশ্লিষ্ট প্রশ্নগুলোর উত্তর দাও। ক বিভাগ থেকে দুটি, খ বিভাগ থেকে দুটি, গ ও ঘ বিভাগ থেকে একটি করে মোট সাতটি প্রশ্নের উত্তর দিতে হবে। প্রতিটি প্রশ্নের মান ১০ (১+২+৩+৪)।

ক-বিভাগ

১। আবারও কৃষি খাতে এক হতাশাব্যঞ্জক চিত্র। আলুর দাম, পেঁয়াজের দাম, ধানের দাম উৎপাদন খরচের হিসাবে সবচেয়ে নিচে নেমে এসেছে। এনজিও ও মহাজনদের কাছ থেকে ঋণ নিয়ে সম্পত্তি বিক্রি করে কিংবা বন্ধক রেখে লাভের আশায় যাঁরা সর্বস্ব বিনিয়োগ করে আলু, পেঁয়াজ কিংবা ধান চাষ করেছিলেন, তাঁরা পড়েছেন মহাবিপদে। কেননা, এখন কৃষকদের ধান ৪০০ টাকা মণ দরে বিক্রি করতে হচ্ছে। পেঁয়াজ ৫০০ টাকা আর আলু ৩০০ টাকা মণ দরে।

(ক) ‘চাষার দুক্ষু’ প্রবন্ধের প্রধান আলোচ্য বিষয় কোনটি?             ১

(খ) চাষাকে অভাগা বলার কারণ ব্যাখ্যা করো।                 ২

(গ) উদ্দীপকের সঙ্গে ‘চাষার দুক্ষু’ প্রবন্ধের কোন দিকটির মিল রয়েছে, তুলনামূলক আলোচনা করো।            ৩

(ঘ) উদ্দীপকের বিষয় ‘চাষার দুক্ষু’ প্রবন্ধের সামগ্রিক প্রতিনিধিত্ব করে কি? উপযুক্ত যুক্তি দিয়ে বিশ্লেষণ করো।         ৪

২। কলিমদ্দি দফাদার বিশ-বাইশ বছর বয়সে ঢুকেছিল ইউনিয়ন বোর্ডের দফাদারিতে। দফাদারের বোর্ড অফিস শীতলক্ষ্যা নদীর তীরবর্তী বাজারে। ১৯৭১ সাল। সরকারি কর্মচারী হিসেবে কলিমদ্দির ওপর খান সেনারা হুকুম জারি করে বোর্ড অফিস খোলা রাখার এবং এলাকার সরকারি লোক হিসেবে খান সেনারা তাকে তাদের অভিযানে সঙ্গী করে নেয়। তারও এক কথা, যখনকার সরকার তখনকার হুকুম পালন করি। কিন্তু আমরা প্রত্যক্ষ করি, খান সেনারা মুক্তি নিধনের জন্য নদীর অন্য পারে গ্রামে যাওয়ার জন্য যখন নড়বড়ে কাঠের পুলে ওঠে, তখন কলিমদ্দি দফাদার কৌশলে তাদের অনেককে নদীতে ফেলে মারে এবং খান সেনারা কেউই অক্ষত অবস্থায় ছাউনিতে ফেরে না।

(ক) ‘রেইনকোট’ গল্পটি কোন গল্পগ্রন্থের অন্তর্ভুক্ত?          ১

(খ) ‘মিলিটারি এখন যাবতীয় গাড়ি থামাচ্ছে। ’ কেন?  ২

(গ) উদ্দীপক ও ‘রেইনকোট’ গল্পের সাদৃশ্য-বৈসাদৃশ্য আলোচনা করো।   ৩

(ঘ) কলিমদ্দি দফাদার ও নুরুল হুদার ভূমিকা বিশ্লেষণে কি উভয়কে মুক্তিযোদ্ধা বলা যায়? তোমার উত্তরের পক্ষে যুক্তি দাও।             ৪

৩। এক রাতে হাজী মুহাম্মদ মহসীন তাঁর শয়নকক্ষে একজন চোরকে হাতেনাতে ধরে ফেলেন। তিনি চোরটিকে শাস্তি না দিয়ে চুরির কারণ জিজ্ঞেস করলেন। চোরটি অকপটে তার অভাব-অভিযোগের কথা তুলে ধরেন। ঘটনা শুনে মহসীনের দয়া ও লজ্জা দুটোই হলো। তিনি চোরকে নগদ অর্থ ও খাবার দিয়ে বিদায় দিলেন। তাকে চুরি না করার উপদেশ দিলেন এবং নিজের সম্পদ দিয়ে কিভাবে অধিকারবঞ্চিতদের দুঃখ-কষ্ট লাঘব করা যায় সে বিষয় ভাবতে থাকেন।

(ক) ওয়াটারলু যুদ্ধ কত সালে সংঘটিত হয়?             ১

(খ) ‘একটি পতিত আত্মাকে অন্ধকার হতে আলোতে আনিয়াছি’—ব্যাখ্যা করো। ২

(গ) উদ্দীপকের সঙ্গে ‘বিড়াল’ রচনার সাদৃশ্য-বৈসাদৃশ্য আলোচনা করো।           ৩

(ঘ) ‘সমাজে বিড়ালের প্রত্যাশিত মানুষ মহসীন’—উদ্দীপক ও বিড়াল রচনার আলোকে মূল্যায়ন করো।         ৪

৪। শ্বশুরবাড়ির অত্যাচারে অতিষ্ঠ হয়ে বাবারবাড়ি এসেছে আরিফা। এখানে তার মা ছাড়া আপন কেউ নেই। শ্বশুরবাড়ি থেকে নিতে এলেও মা তাকে যেতে দেননি। কিন্তু পূর্ণ যুবতী আরিফাকে এলাকার বখাটে শামীম, দিপু, কালা জাহাঙ্গীর এদের কাছ থেকে রক্ষার জন্য তার মা সদাসতর্ক থাকেন।

(ক) ‘সোমত্ত’ শব্দের অর্থ কী?             ১

(খ) মাসি-পিসির ডাক শুনে পাড়ার লোকজন বেরিয়ে আসে কেন?           ২

(গ) উদ্দীপকে আরিফার সঙ্গে ‘মাসি-পিসি’ গল্পের কোন চরিত্রের মিল রয়েছে? তুলনামূলক আলোচনা করো।                 ৩

(ঘ) উদ্দীপকে আরিফাকে রক্ষার জন্য তার মায়ের যে সতর্কতা—মাসি-পিসি গল্পের আলোকে বিশ্লেষণ করো।                 ৪

খ-বিভাগ

৫। ‘তুমি মানুষ

তোমাকে ভালোবাসলেই

আমি কেবল স্পর্শ করতে পারি

অখণ্ড-মানব শিখর।

তুমি আমার জীবনবোধের কথা জানো। ’

(ক) ‘কন্দর’ শব্দের অর্থ কী?              ১

(খ) ‘এই হৃদয়ের চেয়ে বড়ো কোনো মন্দির-কাবা নেই। ’ —ব্যাখ্যা করো।          ২

(গ) ‘সাম্যবাদী’ কবিতার সঙ্গে উদ্দীপকের সাদৃশ্য নিরূপণ করো।            ৩

(ঘ) উদ্দীপকে ‘সাম্যবাদী’ কবিতার মূল চেতনার দিকটি ফুটে উঠেছে? বিশ্লেষণ করো। ৪

৬। মাস্টারদা সূর্য সেন বাংলার এক উজ্জ্বল নাম। তিনি চট্টগ্রাম জেলার রাউজান থানার নোয়াপাড়া গ্রামে জন্মগ্রহণ করেন। আজীবন তিনি ব্রিটিশদের বিরুদ্ধে যুদ্ধে নিয়োজিত ছিলেন। ১৯৩০ সালে তিনি চট্টগ্রামকে ইংরেজমুক্ত করে স্বাধীনতা ঘোষণা করেন। যদিও তা বেশি দিন রক্ষা করতে পারেননি। কিন্তু এই সাহসী বীর যুগে যুগে এ দেশবাসীর সামনে দৃষ্টান্তরূপে অমর হয়ে থাকবেন।

(ক) রংপুরের নূরলদীন একদিন ডাক দিয়েছিলেন কত সালে?                ১

(খ) ‘যখন শুকুন নেমে আসে এই সোনার বাংলায়’—বলতে কবি কী বোঝাতে চেয়েছেন? ২

(গ) উদ্দীপকটি এবং ‘নূরলদীনের কথা মনে পড়ে যায়’—কবিতার প্রতিরূপ অভিন্ন—আলোচনা করো।         ৩

(ঘ) উদ্দীপকটি এবং ‘নূরলদীনের কথা মনে পড়ে যায়’—কবিতা সবাইকে প্রতিবাদী চেতনায় উদ্দীপ্ত করে—বিশ্লেষণ করো।               ৪

৭। ‘যেদিন পড়বে না মোর পায়ের চিহ্ন এই বাটে

আহা কাটবে গো দিন আজো যেমন দিন কাটে। ’

(ক) ‘তাহারেই পড়ে মনে’ কবিতাটি প্রথম কোন পত্রিকায় প্রকাশিত হয়?           ১

(খ) কহিল সে স্নিগ্ধ ‘আঁখি তুলি

দক্ষিণ দুয়ার গেছে খুলি?’—বুঝিয়ে লেখো।             ২

(গ) উদ্দীপকের শেষ চরণের সঙ্গে ‘তাহারেই পড়ে মনে’ কবিতার কোন চরণের কিভাবে সাদৃশ্য রয়েছে—আলোচনা করো।            ৩

(ঘ) ‘উদ্দীপক এবং ‘তাহারেই পড়ে মনে’ কবিতার চেতনার কেন্দ্রবিন্দুতে রয়েছে মৃত্যুভাবনা ও জীবনের নস্টালজিয়া’ আলোচনা করো।            ৪

গ-বিভাগ

৮। মকবুল তিন বিয়ে করেছে। তিন বউই বেঁচে আছে তার। সবার ছোট টুনি। গায়ের রং কালো। ছিপছিপে দেহ। আয়তলোচন। বয়স তার পনেরো-ষোলোর মাঝামাঝি। সংসার কাকে বলে সে বোঝে না। সমবয়সী কারো সঙ্গে দেখা হলে সব কিছু ভুলে গিয়ে মনের সুখে গল্প জুড়ে দেয়, আর হাসে। হাসতে হাসতে মেঝেতে গড়াগড়ি দেয় টুনি।

(ক) মজিদের বড় বউয়ের নাম কী?               ১

(খ) ‘দিন কয়েকের মধ্যে মজিদের আসল চরিত্র প্রকাশ পেতে থাকে’—কথাটি দ্বারা কী বোঝানো হয়েছে?                ২

(গ) উদ্দীপকে টুনির সঙ্গে জমিলা চরিত্রের সাদৃশ্য আলোচনা করো।          ৩

(ঘ) উদ্দীপকের টুনির জমিলা চরিত্রের প্রতিনিধিত্ব করে কি? করলে কতটুকু করে—বিশ্লেষণ করো।               ৪

৯। সুরত আলী অনেক দিন হলো পলাশবনি গ্রামে বসতি গেড়েছে। ধার্মিক মানুষ বলে গাঁয়ের লোকেরা তাকে সমীহ করে চলে। সে নিজেও ধর্মকর্মের পাশাপাশি চাষিদের সঙ্গে বর্গার জমি চাষ করে। এভাবে খেয়ে-পরে মানুষের মঙ্গল কামনায় দিনাতিপাত করে সে।

(ক) নিরাক পড়া কী?              ১

(খ) ‘বিশ্বাসের পাথরে যেন খোদাই সে চোখ’—উক্তিটি ব্যাখ্যা করো।                ২

(গ) উদ্দীপকের সুরত আলীর সঙ্গে ‘লালসালু’ উপন্যাসের বৈসাদৃশ্যগুলো তুলে ধরো। ৩

(ঘ) “উদ্দীপকের সুরত আলীর মঙ্গলাকাঙ্ক্ষা ‘লালসালু’ উপন্যাসে বিরল”—মন্তব্যটি সম্পর্কে তোমার মতামত উপস্থাপন করো।           ৪

ঘ-বিভাগ

১০। অবিসংবাদিত নেতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান। গণতন্ত্র রক্ষার স্বার্থে স্বৈরাচারী পাকিস্তানি সরকারের বিরুদ্ধে আজীবন লড়াই করেছেন। ১৯৫২, ১৯৬৬ এবং শেষ ১৯৭১ সালে এসে তাঁরই নেতৃত্বে স্বাধীন-সার্বভৌম বাংলাদেশ নামক রাষ্ট্রের জন্ম হয়। কিন্তু পাকিস্তানি ষড়যন্ত্রকারী দালালরা থেমে থাকেনি। তাঁর উদারতার সুযোগে তারা এ দেশে আবার শিকড় গেড়ে বসে। শুরু হয় নতুন ষড়যন্ত্র। তারই চরম পরিণতি হয় ১৯৭৫ সালের ১৫ আগস্ট।

(ক) ওয়াটসনের সই কে জাল করেছিল? ১

(খ) ‘আমার নালিশ আজ আমার নিজের বিরুদ্ধে’—বুঝিয়ে দাও।            ২

(গ) ‘সিরাজউদ্দৌলা’ নাটকের সঙ্গে উদ্দীপকে বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের কোনো সাদৃশ্য আছে কি? আলোচনা করো।            ৩

(ঘ) ‘উদ্দীপকের বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান এবং নাটকের সিরাজউদ্দৌলা উভয়ে আপনজনের ষড়যন্ত্রের শিকার হলেও উদ্দীপকের সঙ্গে নাটকের বৈসাদৃশ্য রয়েছে। ’ মূল্যায়ন করো।                 ৪

১১। ছিনতাইকারী সন্দেহে লোকজন একটি নিরীহ বালককে গণধোলাই দিচ্ছে। বালকটির শত অনুনয়-বিনয়ে কেউ কান দিচ্ছে না। এমন অবস্থায় ভিড় ঠেলে কম বয়সী একজন লোক প্রবেশ করে মারমুখী মানুষকে নিবৃত্ত করলেন এবং রক্তাক্ত ছেলেটিকে হাসপাতালে নিয়ে চিকিৎসার ব্যবস্থা করলেন। পরে তিনি নিরীহ ও স্বজনহীন ওই বালককে বাড়িতে আশ্রয় দিলেন। এ অনাথ ছেলেটিই একদিন বিশ্বাস ভেঙে তার আশ্রয়দাতা মনিবকে খুন করে পালিয়ে যায়। অতঃপর পুলিশের হাতে ধরা পড়ে এবং যাবজ্জীবন জেল খাটে।

(ক) ক্লাইভের মতে এ যুগের সেরা বিশ্বাসঘাতক কে?           ১

(খ) ফোর্ট উইলিয়াম জাহাজের আশ্রিতদের অবস্থা বর্ণনা করো।               ২

(গ) উদ্দীপকে কোন দিকটি ‘সিরাজউদ্দৌলা’ নাটকের সঙ্গে সাদৃশ্যপূর্ণ আলোচনা করো। ৩

(ঘ) ‘অনাথ ছেলেটির কর্মকাণ্ড মোহাম্মদি বেগের নির্মমতার প্রতিরূপ—বিশ্লেষণ করো। ৪

Advertisements

Leave a Reply

Fill in your details below or click an icon to log in:

WordPress.com Logo

You are commenting using your WordPress.com account. Log Out / Change )

Twitter picture

You are commenting using your Twitter account. Log Out / Change )

Facebook photo

You are commenting using your Facebook account. Log Out / Change )

Google+ photo

You are commenting using your Google+ account. Log Out / Change )

Connecting to %s

Create a free website or blog at WordPress.com.

Up ↑

%d bloggers like this: